কিভাবে নিজেতে বিনিয়োগ করে productivity এবং ইনকাম বাড়াবেন?

By

|

কিভাবে নিজেতে বিনিয়োগ করে productivity এবং ইনকাম বাড়াবেন?

আমার আগের পোস্টে কিভাবে আপনার টাকা বিনিয়োগ করা উচিত তার রূপরেখা দিয়েছিলাম। আমি বলেছিলাম আপনার জরুরী তহবিল আলাদা করার পরে, আপনাকে new skills শিখতে হবে। যদি অন্যভাবে বলি, আপনার বেতন এবং আয় বাড়াতে আপনাকে “আপনাতে” বিনিয়োগ করতে হবে।

আজ, আমি “আপনাতে” বিনিয়োগ করার তিনটি উপায় বলার করার চেষ্টা করব।

প্রথমত আপনার শরীরের দিকে তাকান

আপনি যদি দৃষ্টিশক্তি খারাপ হয় কিংবা দাঁতের ব্যথায় ভুগছেন, দোয়া করে ডাক্তারের কাছে যান। আপনি হয়ত এগুলিকে ছোটখাটো সমস্যা মনে করে উপেক্ষা করছেন, কিন্তু আপনি ফিট না হওয়া পর্যন্ত আপনি ভাল কাজ বা প্রকল্প পেতে পারেন, কিন্তু আপনি আপনার কাজে ১০০% মন লাগাতে পারবেন না। ছোটখাটো রোগে ভুগে একদিন দুইদিন করে আপনার কাজ করে ক্ষমতা কমে যাবে।

দ্বিতীয়ত নতুন দক্ষতা শিখুন

এটা নতুন কিছু নয়। আপনি যদি একটি full-time চাকরিতে থাকেন বা একজন গৃহিণী হন, একটি নতুন skill শেখা আপনাকে কর্মজীবনের উন্নতি এবং আরও অর্থ উপার্জনের নতুন উপায় খুঁজে পেতে সাহায্য করতে পারে। আপনি যদি মনে করেন আপনি কেবলই একজন গৃহিণী, আপনি কিছুই করতে পারবেন না, তাহলে এটা আপনার ভুল বিশ্বাস। ইন্টারনেটের শক্তি উপেক্ষা করবেন না। আজকাল এমনকি কোনও ধারাভাষ্য বা শেফের চেহারা দেখানো ছাড়াই কেবল রান্নার ভিডিওগুলিও মিলিয়ন ভিউ পায়! কিংবা আপনি সেলাই-এর ভিডিও বানাতে পারেন – আপনি হয়তো বিশ্বাস করবেন না যে ইন্টারনেটে মেঝে ঝাড়ু দেবার ভিডিও আছে!

সর্বশেষে আপনার ফায়ারপাওয়ার আপগ্রেড করুন

এটি এমন একটি দিক যা আমরা সবসময় উপেক্ষা করি। উদাহরণস্বরূপ, আপনি আউটসোর্সিং বা ভিডিও সম্পাদনা করতে চান, কিন্তু আপনার কাছে একটি ভাল ফোন বা কম্পিউটার নেই। যদি সম্ভব হয়, একটি ভাল কম্পিউটার কিনতে দ্বিধা করবেন না। আপনি সুস্থ এবং কাজের দক্ষতা আছে, কিন্তু একটা কম্পিউটারের অভাবে আপনার সুন্দর একটা ভবিষ্যতের জন্য রেডি না।

উড়োজাহাজে চড়ে থাকলে, এই সতর্কবাণীটা তো শুনেছেন। দুর্ঘটনায় পড়লে আগে নিজের মাস্ক পড়েন, তারপর পাশের জনকে পড়তে সাহায্য করুন। আমাদের জীবনটাও তেমন, আপনি যদি নিরাপদ না থাকেন, আপনি যদি সুস্থ না থাকে, তাহলে আপনজনের খেয়াল রাখবেন কি করে?

Posts You Might Like